মিশা কি আওয়ামিলীগ করেন ?

মে ৭, ২০১৭ ১১:০১ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে সভাপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন মিশা সওদাগর। সাধারণ সম্পাদক পদে জয়লাভ করেছেন জায়েদ খান। নির্বাচনের এই ফলাফল নিয়ে পুরো ইন্ডাস্ট্রি এখন সরগরম। আলোচনার পাশাপাশি এবারের নির্বাচনের সঙ্গে মিশে গেলো বিতর্কের তকমা।

শুক্রবার (৫ মে) নির্বাচনের দিন এফডিসিজুড়ে নানান বিশৃঙ্খলা আর তারকাদের হেনস্থা করার পাশাপাশি মোবাইল চুরির মত ঘটনাও সবাইকে হতাশ করেছে। ফলাফলে দেরি কেন তা জানতে গেলে বাধার সম্মুখীন হন বিদায়ী সভাপতি শাকিব খান। তবে দিনশেষে সমস্ত আলোচনা-সমালোচনার কেন্দ্রে চলে এলো নির্বাচনের ফলাফল।

সভাপতি পদে গতকাল মধ্যরাত পর্যন্ত ফলাফলে এগিয়ে ছিলেন ওমর সানি। অন্যদিকে সাধারণ সম্পাদক পদে এগিয়ে ছিলেন জায়েদ খান। তারা দুজনই পৃথক দুই প্যানেলের।

এমনকি অনেকেই তাদের শুভেচ্ছা বার্তা জানান। শিল্পী সমিতির ভোটারদের কাছ থেকে আসা প্রতিক্রিয়াও ইঙ্গিত দিয়েছিলো এবারের নির্বাচনে সভাপতি পদে ওমর সানি ও সাধারণ সম্পাদক পদে জায়েদ খান জয়লাভ করতে চলেছেন।

তবে রাত গভীর হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে পাল্টে গেলো দৃশ্য। শুক্রবার মধ্যরাত পেরিয়ে অবশেষে জানা গেলো, ওমর সানির চেয়ে পিছিয়ে থেকেও শেষ পর্যন্ত সভাপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন মিশা সওদাগর। তবে সাধারণ সম্পাদক পদে শুরু থেকে এগিয়ে থেকে শেষ পর্যন্ত জিতেছেন জায়েদ খানই।

এদিকে নির্বাচনে মোট ৮৯টি ভোট বাতিল হয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন। ৫৫৮ টি ভোটের মধ্যে ৮৯টি ভোটই বাতিল হয়ে গেলো! বিষয়টিকে স্বাভাবিকভাবে দেখছেন না অনেকেই।

তাই নির্বাচনের ফলাফলে হঠাত এমন বদলি হাওয়া লাগবে, এমনটা সিনেমা সংশ্লিষ্ট কেউই হয়ত ভাবেননি। ফলে নির্বাচিতদের শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি অনেকের কাছ থেকেই ফলাফল নিয়ে হতাশাজনক মন্তব্য শোনা যাচ্ছে।

 
সংবাদটি পড়া হয়েছে 1139 বার
 
 
 
 
বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদ ও তারেক রহমান
 
 
 
 

সব মেনু এক সাথে

 
 

পূর্বের সংবাদ

 
 

অনন্য অনলাইন পত্রিকা

 
 
 

 
Plugin by:aAM
Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com