জাতির পিতাসহ আট দিবস পালনের রিট খারিজ

জানুয়ারি ৮, ২০১৮ ৮:৫৫ পূর্বাহ্ণ

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে আনুষ্ঠানিক জাতির পিতা হিসেবে স্বীকৃতি দিয়ে আটটি দিবস রাজনৈতিক দলসহ সব নাগরিকের পালন বাধ্যতামূলক চেয়ে করা রিট খারিজ করে দিয়েছেন হাইকোর্ট।

সোমবার বিচারপতি কাজী রেজা-উল হক ও বিচারপতি মোহাম্মদ উল্লাহর সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রিট খারিজ করে এ আদেশ দেন।আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোজাম্মেল হক। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল তাপস কুমার বিশ্বাস।

রিট খারিজের বিষয়ে আদালত বলেন, নাগরিকদের এসব দিবস পালনে বাধ্য করার নির্দেশনা দেয়া আমাদের আওতায় পড়ে না। এটা দেখার দায়িত্ব জনগণের নির্বাচিত সংসদের।

এর আগে বুধবার মুক্তিযোদ্ধা, স্বাধীনতা, বঙ্গবন্ধু, জাতীয় চার নেতা ও শহীদ বুদ্ধিজীবীসংক্রান্ত আটটি দিবস দেশের রাজনৈতিক দলসহ সব নাগরিকের পালন বাধ্যতামূলক করতে নির্দেশনা চেয়ে রিট করা হয়।

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মোজাম্মেল হক ও মো. শহীদুল ইসলাম রিট আবেদনটি করেন, যা পর দিন বৃহস্পতিবার শুনানির জন্য ওঠে। সেদিন আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোজাম্মেল হক। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল তাপস কুমার বিশ্বাস।

দিবসগুলো হল- বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ, ১৭ এপ্রিল মুজিবনগর দিবস, ১৪ ডিসেম্বর শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস, ২৬ মার্চ স্বাধীনতা দিবস, ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবস, ১০ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস, ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস, ৩ নভেম্বর জেলহত্যা দিবস ও ‘জয় বাংলা’ স্লোগান। এসব দিবস সবার জন্য পালন বাধ্যতামূলক নিশ্চিত না করা পর্যন্ত আসন্ন জাতীয় নির্বাচন স্থগিতের আরজি জানানো হয়।

রিটে এসব দিবস পালনে ব্যর্থ হলে রাজনৈতিক দলগুলোর নিবন্ধন বাতিল চাওয়া হয়।

এসবের নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত পরবর্তী জাতীয় সংসদ নির্বাচন স্থগিত রাখার আবেদন জানানো হয় রিটে। সঙ্গে সঙ্গে রাজনৈতিক দলের গঠনতন্ত্রে এই আটটি দিবস পালন করার বিষয় অন্তর্ভুক্ত করার নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে।

 
সংবাদটি পড়া হয়েছে 1109 বার
 
 
 
 
বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদ ও তারেক রহমান
 
 
 
 

সব মেনু এক সাথে

 
 

পূর্বের সংবাদ

 
 

অনন্য অনলাইন পত্রিকা

 
 
 

 
Plugin by:aAM
Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com