গণধর্ষণের শিকার ছয় বছরের শিশু, গ্রেপ্তার ১

এপ্রিল ৭, ২০১৮ ৪:৩২ অপরাহ্ণ

সুনামগঞ্জের বিশ্বম্ভরপুরে সাড়ে ছয় বছরের এক শিশু গণধর্ষণের শিকার হয়েছে। স্থানীয় ৩ বখাটে শিশুটিকে গণধর্ষণ করে বলে পরিবারের লোকজন অভিযোগ করেছেন। গতকাল মঙ্গলবার দিবাগত রাত ৮টার দিকে শাহ সলুক র. মাজারের ওরস চলাকালীন সময়ে মাজার সংলগ্ন সলুকাবাদ ইউনিয়ন পরিষদ ভবন এলাকায় গণধর্ষণের শিকার হয় ওই শিশু কন্যা। গণধর্ষণের শিকার শিশুটি বাঘবেড় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ছাত্রী। বর্তমানে ওই শিশুকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিসা দেয়া হচ্ছে। গণধর্ষণের ঘটনায় শাহ সলুক রহ: মাজারের সাবেক খাদেম মৃত আমানত শাহ’র স্ত্রী জুলেখা বাদী হয়ে আজ বুধবার বিশ্বম্ভরপুর থানায় তিন জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। এ বিশ্বম্বরপুর উপজেলার আক্তাপাড়া গ্রামের মোবারক আলীর ছেলে ও শাহ সলুক র: মাজারের ভূয়া খাদেম দাবীদার হাছান আলী (৪০) নামের এক বখাটেকে গ্রেপ্তার করে বিশ্বম্ভরপুর থানা পুলিশ। মামলার অপর দুই আসামী পলাতক রয়েছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানা যায়, হাছান আলীসহ কয়েকজন মিলে শিশু কন্যাটিকে ফুঁসলিয়ে মাজার সংলগ্ন এরিয়া থেকে কিছু দূরে সলুকাবাদ ইউনিয়ন পরিষদ ভবন এলাকায় নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণ করে। পরে এরা পালিয়ে গেলে কন্যা শিশুর চিৎকার শুনে স্থানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে সুনামগঞ্জ সরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তৃব্যরত চিকিৎসক অবস্থার অবনতি দেখে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। বিশ্বম্ভরপুর থানার ওসি মোল্লা মুনির হোসেন জানান, মামলা হয়েছে। অপরাধে সংশ্লিষ্ট বাকি দুই আসামীকে গ্রেপ্তার চেষ্টা চলছে।

 
সংবাদটি পড়া হয়েছে 1068 বার
 
 
 
 
বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদ ও তারেক রহমান
 
 
 
 

সব মেনু এক সাথে

 
 

পূর্বের সংবাদ

 
 

অনন্য অনলাইন পত্রিকা

 
 
 

 
Plugin by:aAM
Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com